কবিতা /বাপ্পি

ইকবাল হোসেন রোমেছ এর গুচ্ছ কবিতা

মনের আড়াল
*****
চোখের আড়াল হও!
মনের আড়াল  নও।
চোখের আড়াল হলেই
     যদি মনের আড়াল হতো
চোখ দুইটি বেঁধে নিতাম
    তোমায় না দেখিলেই দুঃখ আমার যেতো
   মনের আড়াল নও তুমি
        মনের মাঝেই থাকো
     আমি না হয় বিরহ প্রেমিক
       অন্যকারো ছবি আঁকো।
কাজল রেখা
*****
    প্রিয়”
           তুমি ভালোবাসো না
      তুমি খুঁজো চাঁদ
নির্ঘুম রাত
      একাকি সময়
    দূর আকাশের শুকতারা
‘                                     ‘
আমি খুঁজি ভোর
      হতে আমি তোর
চাঁদের বুকে এক খন্ড বাড়ী
       লাল পাইড়ের শাড়ী
               ঘর সংসার।
একটি মনের আত্নহত্যা
******
আমি বিবর্ণ একরাতে
চাঁদকে  কাঁদতে  দেখেছি।
সড়কের  একটু  নীচেই
ঝুলে ছিল দুটি প্রেমের মৃত দেহ।
রেললাইনের একটু  দূরেই 
পড়ে আছে একটি  গলাকাটা লাশ।
কেউ  একজন  বলে  উঠলো
এটা  নাকি  অমিমাংশিত
    
     একটি  প্রেমের  ইতিহাস।
আমি বিবর্ণ  একরাতে,
দুটি  তাঁরা কে  ব্লাকহোলে
ডুবে  যেতে  দেখেছি।
আকাশে  বড়  শুকতারাকে
দেখে  হঠাৎ বলে  ফেললাম।
আমি  তোমায় ভালোবাসি
আর  এরই  মাঝে  ঘটে  গেল
একটি  মনের  আত্নহত্যা।
প্রেম রোগ -১
*****
মস্তিস্কের রক্তখরন
প্রতিনিয়ত এখানেই।
সূর্যটা অস্ত যাওয়ার আগে
বলে গেল,
কাল আবার দেখা হবে।
এখানেই
রাতের অন্দরমহল খুঁজতে
ব্যস্ত কুতুয়াল,
রাজার শখ বাঈজি নাচে।
সম্রাট শাজাহান মমতাজের সাক্ষী রইল
তাজমহল।
লাইলি  মজনু  কেউই
খুঁজে পেলনা ঠিকানা।
প্রেম রোগ -২
*****
মরার পরে এসো না তুমি ফুল দিতে সমাধীতে আমার।
আমি  রূপের ছায়ায় মিশে হয়ে যাব ফের তোমার
প্রতিশোধ  নিবে তখন কিন্তুু ছিলাম
তোমার অবহেলিত  রাজকুমার
স্মৃতির সাথে মিশে যেতেও পারি
মিলে যেতে পারে কল্প,
পৃথিবীতে ছিল আছে সদা
তোমার আমার প্রেমরোগের  গল্প।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *